সফল ভাবে সম্পন্ন হলো “TutorialFor.Me মিটআপ ডিসেম্বর ২০১২”

কিছুদিন আগে একটা ছোট ইভেন্ট এর সাহায্য TutorialFor.Me ফেসবুক ফ্যানপেজ থেকে একটি ইভেন্ট তৈরি করা হয় TutorialFor.Me এর প্রথম বছর পূর্তি উপলক্ষে এবং শত ঝামেলার মধ্য দিয়ে আজকে তা সফল ভাবে সম্পন্ন হয়েছে। TutorialFor.Me এর প্রথম মিটআপ টি চাঁপাইনবাবগঞ্জ এর “নবাবগঞ্জ সরকারি কলেজ” মাঠে অনুষ্ঠিত হয়েছিলো বিকেল ৪.৩০ মিনিটে এবং সেটা আনুমানিক প্রায় ২ ঘন্টার অনেক আলোচনা ও মজার করার মধ্যে দিয়ে শেষ হয়।

আমাদের মিটআপ-এ TutorialFor.Me এর সদস্য সহ আরোও বেশ কয়েকজন গেস্ট উপস্থিত ছিলেন যার কারনে আমাদের মিট-আপ আরোও সঠিকভাবে সফল হয়েছে।

যেভাবে সফল হয়েছে আমাদের এই প্রথম মিলনমেলাঃ

মিট-আপ সকালে হওয়ার কথা থাকলেও সেটা সম্ভব হয়নি কারনঃ দেশের পরিস্থিত খুবিই খারাপ আপনারা হয়তো জানেন আজকের এই দিনে সারাদেশে হরতাল চলছিলো। তাই আমি অনেক চিন্তা-ভাবনা করে সকালে সময়টা বিকেলে করে দেই যাতে করে আজকেই আমাদের মিট-আপ টি সফল করা হয়।

দুপুর ১ট ২০মিনিট গড়ির কাটাঃ কল করলাম আমাদের সব চাইতে বড় স্পন্সর আল-আমিন ভাইকে, যাকে আমাদের মিটআপের জন্য খাওয়া দাওয়ার দায়িত্ব দেয়া হয়েছিলো। কলের পর কল দিলাম কিন্তু সে মহা ব্যস্ত মানুষ আমার কল রিসিভ করতে পারলো না। তাই বসে না থেকে আমি অন্যদের এই মিটআপ এর জন্য অবগত করতে লাগলাম।

দুপুর ১টা ৩০ মিনিটঃ কল করলাম মহিবুল ইসলাম – বিডিরঙ এর মোডারেটর কিন্তু সে কল রিসিভ করে বলে “আমি উপস্থিত হইতে পারবো না, আমাদের বাড়িতে ভূতের আঁশর পড়েছে :P ” মানে তাদের বাড়িতে তাদের কাউকে ভূতে ধরেছে তাই সে সেটা নিয়ে ব্যস্ত ছিলো।

এই সেই করতে করতে গড়ির কাটা একদম ২টা ৩০ মিনিট! উফ! তাড়াহুড়া আরোও বেড়ে গিয়েছিলো এদিকে আমাদের আল-আমিন কে আবার ফোন দিলে সে রিসিভ করে এবং বলে আসছি এবং আমারা TutorialFor.Me এর অফিসে দুই-এক মিনিট বসেই রওনা দিলাম আর রাস্তাই দেখা হলো আমাদের প্রান প্রিয় বন্ধু আওয়াল এর সাথে তাকেই সাথে নিয়ে চললাম।

কেক এর অর্ডার দেয়া ছিলো আগে থেকেই হরতাল হওয়ার কারনে তা সো-রুম থেকে নই কারখানা থেকে নিয়ে আসতে হবে তাই কারাখানা গেলাম সেখানে তারা বলল আপনারা আবার সো-রুম এ চলে যান তাই সো রুম এ এসে কেক ও অনান্য কিছু হালকা খাওয়ার সংগ্রহ করা বলা হয় আল-আমিন সাহেব কে।

এমন সময় ফোন বেজে উঠলো, অপর দিক থেকে গোলাম মাওলা ডলার ভাই বললো আমারা তো কলেজ মাঠে আপনারা কই? আমি বললাম এক মিনিট আসছি। এবং সেখানে গিয়ে দেখি ডলার ভায়ের সাথে রয়েছেন আমাদের আরোও একজন জনপ্রিয় মানুষ জুয়েল ভাই। আনন্দে প্রান ভরে গেছে সেই সময় আমাদের এই ছোট ইভেন্টে তার উপস্থিত দেখে।

এর পর ধীরে ধীরে মোট ২২জন আমাদের মিটআপ-এ অংশ গ্রহন করেছেন আমাদের মিট-আপ কে সফল করার জন্য। মিটআপ-এ শুধু কেক কেটে খাওয়া হয়নি কেক মাখা-মাখি ও হয়েছে :D

নিচে কিছু ছবি আপনাদের জন্যঃ

এইটা ছবি প্রায় সবাই আছে, তবে কয়েকজন বাদও পড়ে গেছে।

এইটা ছবি প্রায় সবাই আছে, তবে কয়েকজন বাদও পড়ে গেছে সাথে যে ছবি তুলেছে সেও :P

মনে চাই সবাই কেক কাটবে কিন্তু কেও কেক কাটছে না, লজ্জা করছে :P তাই চাকু হাতে নিয়ে আমাদের জুয়েল ভাই ও ডান পাশে আমি (প্রথমে) তারপর তুষার সাহেব।

মনে চাই সবাই কেক কাটবে কিন্তু কেও কেক কাটছে না, লজ্জা করছে :P তাই চাকু হাতে নিয়ে আমাদের জুয়েল ভাই ও ডান পাশে আমি (প্রথমে) তারপর তুষার সাহেব।

সবার সাথে কেক না খাওয়া দাওয়া করা কেক গুলো কে মাখামাখি করা হচ্ছে :D

সবার সাথে কেক না খাওয়া দাওয়া করা কেক গুলো কে মাখামাখি করা হচ্ছে :D

আরোও অনেক ছবি গুলো আপনারা ফেসবুকের এই অ্যালবাম থেকে দেখে নিন। প্রথম মিটআপে সদস্য কম ছিলো এবং সবাই চাঁপাইনবাবগঞ্জ বাসী তাই অনেকের অনেক কে চিনতে হয়তো অসুবিধা হতে পারে। তবে আগামি মিটআপ (২০১৩) তে আমরা ইনশাআল্লাহ্‌ বড় এক ধরনের আয়োজন করার ব্যবস্থা করবো।

এই মিটআপে TutorialFor.Me নিয়ে যা আলোচনা হয়েছেঃ

এই মিটআপ এর মূল কারন ছিলো এই সাইটকে আরোও সক্রিয় একটি কমিউনিটিতে পরিনত করা। আরও সেই সাথে TutorialFor.Me কে নবিন ইন্টারনেট ব্যবহারকারীদের কাছে পৌঁছে দেয়ার জন্য নতুন ধরনের প্রচারনা সেই সাথে নতুন কিছু টিউটোরিয়াল লেখক যুক্ত করার জন্য আলোচনা করা হয়।

TutorialFor.Me এর নতুন ইউনিক ডিজাইন ও নতুন কিছু ফিচার যুক্ত করা হবে যে ফিচার গুলো TutorialFor.Me সাইটে থাকা প্রয়োজন। নতুন ফিচারগুলো সমন্ধে সবাইকে কিছুদিনের মধ্যেই অবগত করা হবে।

TutorialFor.Me কমিউনিটি টি আপনাদের জন্য নতুন এক ধরনের অনুভূতি দেয়ার জন্য খুব শীঘ্রই আসছে যা আপনাদের জন্য নতুন কিছু শেখার ব্যবস্থা কে আরোও সহজ ও দ্রুত সম্পন্ন করতে সাহায্য করবে।

তাই TutorialFor.Me এর সাথেই থাকুন – সবাইকে ধন্যবাদ!